রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৫৯ অপরাহ্ন

ধুলখোলা ইউনিয়নের পালপাড়ায় বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ার কিশোরীকে অপহরণ করার অভিযোগ

ধুলখোলা ইউনিয়নের পালপাড়ায় বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ার কিশোরীকে অপহরণ করার অভিযোগ

মেহেন্দিগঞ্জ প্রতিনিধি:মেহেন্দিগঞ্জ সীমান্তবর্তী হিজলার ধুলখোলা ইউনিয়নের পালপাড়া গ্রামে এক কিশোরীকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়ে ব্যার্থ হয়ে অপহরণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। অভিযোগকারী ওই কিশোরীর পিতা মোস্তফা সরদার জানান তার কিশোরি মেয়ে ইতি (১৬)কে বিয়ে করার প্রস্তাব পাঠায় পাশ্ববর্তী বাড়ির মতু পাটোয়ারীর ছেলে জহির পাটোয়ারী। ১৮বছর পূর্ণ না হওয়ায় প্রস্তাব নাকচ করে দেন তিনি। প্রস্তাব নাকচ করায় গত ১৯ জানুয়ারী রাতে ঘরে একা পেয়ে তার কিশোরী মেয়ে ইতি বেগমকে জোড়পূর্বক তুলে নিয়ে যায় জহির পাটোয়ারী ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা। ঘটনার সময় মেয়ের মা-বাবা এলাকার হিজলা পিএন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া অনুষ্ঠানে ছিলেন। মেয়েকে জোড়পূর্বক তুলে নিয়ে যাওয়ার সময় ঘরের নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়।এই ঘটনায় মেয়ের বাবা মোস্তফা সরদার বাদী হয়ে হিজলা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ লিখিত অভিযোগ পেয়ে তা এজাহার হিসেবে না নিয়ে মেয়েকে উদ্ধার করার আশস্থ করে দুই দিন কালক্ষেপন করেন। সুত্র জানায় অপহরণকারী জহির ধুলখোলা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আবুল কালাম’র ক্যাডার হিসেবে পরিচিত। তিনি বিষয়টি মিমাংসার প্রস্তাব দিয়েছিলেন মেয়ের বাবাকে, এমন কি পুলিশকেও আশস্থ করেছেন মেয়ে উদ্ধার করে দেওয়ার। কিন্তু তিনি মেয়ে উদ্ধার না করে উল্টো ভালোবাসার টানে মেয়ে উধাও বলে এলাকায় প্রচার করে ঘটনাটি ভিন্নখাতে নেওয়ার চেষ্টা করছেন। এ বিষয়ে আবুল কালাম সাংবাদিকদের বলেন, আমি চেষ্টা করেছি মেয়েটি উদ্ধার করার জন্য কিন্তু ওই ছেলে এবং মেয়ে কোথায় আছে আমি খোজ নিয়েও জানতে পারি নাই। আমি অন্যায়কারীর পক্ষে নেই। এলাকাবাসীর দাবী ভালবাসার টানে ইতি জহির’র সাথে পালিয়েছে। ইতির মা বলেন, জহির বিভিন্ন সময় চলার পথে তার মেয়েকে বিয়ে এবং প্রেমের প্রস্তাব দিতো। এই কারনে তার মেয়ে গত বছর এস এস সি পাশ করার পরও তাকে কলেজে ভর্তি করেন নি। কিন্তু তাতেও শেষ রক্ষা করতে পারেন নি।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018-20
Design & Developed BY Md Taher