সোমবার, ০১ Jun ২০২০, ০৮:০৭ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
খুলনায় প্রথম প্লাজমা থেরাপি নেয়া করোনা রোগীর মৃত্যু যশোরে কথিত বন্দুকযুদ্ধে মাদক বিক্রেতা নিহত ঝিনাইদহে দুই শিশু সন্তানকে পুকুরে ফেলে হত্যা করলেন মা পটুয়াখালীতে অতিরিক্ত যাত্রী ও স্বাস্থ্য বিধি না মানায় সুন্দরবন -৮ লঞ্চ থেকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা। ঘুর্ণিঝড় আম্পানে লন্ডভন্ড কুয়াকাটার বনাঞ্চল॥ ব্যাপক ক্ষতি ৪ সংসদীয় আসন ও চট্টগ্রাম সিটি নির্বাচনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত সোমবার বাড্ডার আ.লীগ নেতা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা পরিবহন ভাড়া বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত নগরবাসীর জন্য ‘মড়ার ওপর খাঁড়ার ঘা’ এসএসসিতে পাসের হার ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৩৫ হাজার ঝুঁকি আর শঙ্কার মধ্যেই খুলতে শুরু করেছে সবকিছু
লক্ষ্য এখন ভালো ফিল্ডিং সাইড হওয়া: মাহমুদউল্লাহ

লক্ষ্য এখন ভালো ফিল্ডিং সাইড হওয়া: মাহমুদউল্লাহ

বি নিউজ : দলের সেরা ফিল্ডারের হাত থেকে ছুটে যাচ্ছিল বল। মুঠো থেকে ছুটে যাচ্ছিল সহজ ক্যাচ। বাংলাদেশ পরিণত হয়েছিল বাজে এক ফিল্ডিং দলে। জরাগ্রস্ত ফিল্ডিং নিয়ে প্রায় প্রতি ম্যাচে কথা বলতে হচ্ছিল অধিনায়ককে। সেই সময় পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ, ফিল্ডিংয়ে করেছে বেশ উন্নতি। মাহমুদউল্লাহ জানান, এখন ভালো একটি ফিল্ডিং সাইড হয়ে উঠতে খাটছেন তারা। গত বিশ্বকাপে বাজে ফিল্ডিংয়ের চরম মাসুল দেয় বাংলাদেশ। শুরুতেই জীবন পাওয়া ভারতের রোহিত শর্মা দারুণ এক সেঞ্চুরিতে গড়ে দিয়েছিলেন ব্যবধান। নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচেও বাজে ফিল্ডিংয়ের বড় খেসারত দেয় বাংলাদেশ; রান আউট থেকে বেঁচে যাওয়া কেন উইলিয়ামসন রস টেইলরের সঙ্গে গড়েন ম্যাচ জেতানো জুটি। ডেভিড ওয়ার্নার জীবন পেয়ে খেলেন দেড়শ রানের ইনিংস। রানের পাহাড় গড়ে জেতে অস্ট্রেলিয়া। শ্রীলঙ্কায় ওয়ানডে সিরিজে ফিল্ডিংয়ের অবস্থা ছিল আরও করুণ। ফিল্ডিং কোচ রায়ান কুকের কাছে বাজে ফিল্ডিংয়ের ব্যাখ্যা চেয়েছিল বিসিবি। এরপর আফগানিস্তানের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টেও ছিল না উন্নতির কোনো চিহ্ন। ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ দিয়ে বদলে যেতে থাকে বাংলাদেশের ফিল্ডিং। ভারতের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টিতেও ধরে রাখে ভালো ফিল্ডিংয়ের ধারা। অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ জানান, কোচের কঠোর পরিশ্রম আর খেলোয়াড়দের দারুণ খাটুনির ফল এই উন্নতি। “আমরা ফিল্ডিংয়ে গুরুত্ব বেশি দিচ্ছি। আর আমাদের ফিল্ডিং কোচ রায়ানও সবসময় চেষ্টা করে যাচ্ছে যেন, আমরা সবসময় আমাদের সেরাটা ফিল্ডিংয়ে দিতে পারি এবং ভালো ফিল্ডিং সাইড হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হতে পারি। এজন্য কষ্টটা করা।” ফিল্ডিংয়ে নতুনত্ব আনার চেষ্টা করে যাচ্ছেন রায়ান। আরও উপভোগ্য করে তোলার চেষ্টা অনেকটাই সফল। খেলোয়াড়দের দেখা গেল নিজেদের মধ্যে প্রতিযোগিতা করে আরও ভালো করার চেষ্টা করতে। মাহমুদউল্লাহর চাওয়া, ম্যাচে এটাই ধরে রাখুক তার সতীর্থরা।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2017 bnewsbd24.Com
Design & Developed BY Md Taher