বৃহস্পতিবার, ০২ Jul ২০২০, ০৭:১৮ অপরাহ্ন

নাসিমকে নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে গ্রেফতার হওয়া রাবি শিক্ষক বরখাস্ত

নাসিমকে নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে গ্রেফতার হওয়া রাবি শিক্ষক বরখাস্ত

বি নিউজ : প্রয়াত সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের সময়ে স্বাস্থ্যখাতের দুর্নীতি নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট দেয়ায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমানকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এর আগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক কাজী জাহিদুর রহমানকে গ্রেফতার করা হয়।

আজ শনিবার সকালে উপাচার্যের বাসভবনে অনুষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় তাকে বরখাস্তের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম আবদুস সোবহান সভায় সভাপতিত্ব করেন। বিষয়টি নিশ্চিত করে রাবির উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দ কুমার সাহা বলেন, শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমান গ্রেফতার হওয়ার পর আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের লিগ্যাল সেলের মাধ্যমে আইন পর্যালোচনা করা হয়। আইন পর্যালোচনায় তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা ছাড়া কোনো উপায় ছিল না। তাই গ্রেফতারের দিন গত ১৮ জুন থেকে সাময়িক বরখাস্তের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিন্ডিকেট। তিনি মামলায় জেলে আছেন সেজন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন অনুযায়ী এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। বিষয়টি নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তিনি সাময়িক বরখাস্ত থাকবেন। তবে আইন অনুযায়ী তার বেতনের একটি নির্ধারিত অংশ তিনি পাবেন বলেও জানান উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দ কুমার সাহা। এর আগে প্রয়াত সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের সময়ে স্বাস্থ্যখাতের দুর্নীতি নিয়ে ফেসবুক পোস্টে কটূক্তির অভিযোগ এনে এই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা করেন রাজশাহী সাগরপাড়ার বাসিন্দা অ্যাডভোকেট তাপস কুমার সাহা। ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৫, ২৯ ও ৩১ ধারায় অভিযোগ আনা হয়। গত ১৭ জুন মধ্যরাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কোয়ার্টার থেকে কাজী জাহিদুর রহমানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সেই থেকে কারাগারে আছেন ওই শিক্ষক। এর আগে মোহাম্মদ নাসিম অসুস্থ হওয়ার পর কাজী জাহিদুর রহমান তার ফেসবুক পোস্টে স্বাস্থ্যখাতের দুর্নীতি নিয়ে কয়েকটি লেখা পোস্ট করেন। পরে তার শাস্তির দাবি জানান ছাত্রলীগ নেতাকর্মী ও আওয়ামীপন্থী শিক্ষকরা। তিনি সম্প্রতি (Kayi Jahid) নামে তার ফেসবুক আইডি থেকে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের বিভিন্ন কার্যক্রম নিয়েও স্ট্যাটাস দেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়োগ প্রক্রিয়া ও ডিজিটালাইজেশন কার্যক্রমে বিভিন্ন দুর্নীতি ও অনিয়মের ঘটনা ঘটছে বলে ওইসব স্ট্যাটাসে উল্লেখ করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কার্যক্রম নিয়ে ‘বিভ্রান্তিকর তথ্য ও কুৎসা রটানোর অভিযোগে’ তার বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে থানায় অভিযোগ দায়ের করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক মুহাম্মদ এন্তাজুল হক। নগরীর মতিহার থানায় এ অভিযোগ দায়ের করেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2017 bnewsbd24.Com
Design & Developed BY Md Taher